হাসতে হাসতে অজ্ঞান ২৫ শিক্ষার্থী

শ্রেণিকক্ষে পাঠদানে ব্যস্ত ছিলেন শিক্ষক। এমন সময় হঠাৎ করেই হাসতে শুরু করে শিক্ষার্থীরা। প্রথমে বাড়াবাড়ি মনে না হলেও, কিছুক্ষণের মধ্যে একে একে ২৫ নারী শিক্ষার্থী হাসতে হাসতে অজ্ঞান হয়ে যায়।

সোমবার কুমিল্লা আদর্শ সদর উপজেলার সৈয়দপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির নারী শিক্ষার্থীদের কক্ষে এ ঘটনা ঘটে।

বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নারায়ণ চক্রবর্তী জানান, সৈয়দপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে সোমবার টিফিনের বিরতি শেষে পাঠদান শুরু হয়। বেলা আড়াইটায় ৮ম শ্রেণির ছাত্রীদের ক্লাসে পাঠদান করছিলেন শিক্ষক সুধাংশু ভূষণ দাস।

তিনি জানান, হঠাৎ শ্রেণিকক্ষে দুই-তিনজন শিক্ষার্থী হাসাহাসি শুরু করে। কাছে গিয়ে কারণ জানতে চাইলে অন্যরাও হাসতে শুরু করে। এরপর একে একে হাসতে হাসতে অসুস্থ হয়ে পড়তে থাকে শিক্ষার্থীরা। পুরো বিদ্যালয়ে এসময় আতঙ্কের সৃষ্টি হয়। শিক্ষকসহ অন্যান্যরা এসময় অসুস্থ শিক্ষার্থীদের স্থানীয় চিকিৎসাকেন্দ্রে নিয়ে যান।

হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক কল্যাণময় দেব জিৎ জানান, অতিরিক্ত হাসির কারণে মাথাব্যথায় অজ্ঞান হয়ে পড়ে। দুই-একজনের মধ্যে প্রথমে বিষয়টি দেখা দিলে বাকিরা আতঙ্কিত হয়ে অসুস্থ হয়ে যায়।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ