ভর্তিচ্ছুদের তথ্য সহায়তায় ‘EduBot’ চালু

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য শিক্ষার্থীদের দোরগোড়ায় ও প্রান্তিক পর্যায়ে পৌঁছে দিতে অনলাইনে 'EduBot' নামক একটি চ্যাটবট চালু করেছে কোটা সংস্কার আন্দোলনের প্ল্যাটফর্ম বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ।

বৃহস্পতিবার (১২ সেপ্টেম্বর) রাত সোয়া আটটায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সভাকক্ষে ডাকসুর সহ সভাপতি (ভিপি) নুরুল হক নুর চ্যাটবটটির উদ্বোধন করেন।

'EduBot' হলো কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা সম্পন্ন একটি ম্যাসেঞ্জার চ্যাট ভার্সন। ভর্তি কার্যক্রম সংক্রান্ত যে কোনো প্রশ্নের উত্তর প্রদান করবে 'EduBot'।

'EduBot' ভর্তি পরীক্ষার সময়সূচি, আসন বিন্যাস, ফলাফল, ভর্তি প্রক্রিয়া, বিষয় পরিচিতি, জরুরি সহায়তা, কেন্দ্রীয় ভর্তি কার্যালয়ের সঙ্গে যোগাযোগ এবং ভর্তি সংক্রান্ত যে কোনো ধরনের প্রশ্নের উত্তর তাৎক্ষণিকভাবে প্রদান করবে বলে জানান সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

আপাতত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষার সময়সূচি ও আসন বিন্যাসসহ পরীক্ষা কেন্দ্রের পরিচিতি সংক্রান্ত প্রশ্নের উত্তর দেবে 'EduBot'। পর্যায়ক্রমে বিষয় পরিচিতি সহ ভর্তি সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্যের কাজ সংযোজন করা হবে বলে জানান বটটির উদ্যোক্তা ও পৃষ্ঠপোষকরা।

বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আকরাম হুসাইনের মূল উদ্যোগে এই চ্যাটবটটি তৈরি করা হয়েছে। তথ্য বিজ্ঞান ও গ্রন্থাগার ব্যবস্থাপনা বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী শেখ এমিলি জামাল, আরবি ভাষা ও সাহিত্য বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ইস্রাফিল হোসাইন এবং মনোবিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আব্দুল্লাহ হিল বাকী সহযোগী উদ্যোক্তা হিসেবে ছিলেন।

'EduBot' আগামীতে সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি প্রক্রিয়া এবং শিক্ষা সংক্রান্ত কার্যক্রম পর্যায়ক্রমে চালু করবে বলে জানান বট চালুকারীরা।

'EduBot' উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বটের উদ্যোক্তাবৃন্দ সহ বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন, যুগ্ম আহ্বায়ক সোহরাব হোসেন, ফারুক হাসান, বিন ইয়ামিন মোল্লা এবং সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী নাহিদ ইসলাম ও আইন বিভাগের শিক্ষার্থী সালেহ উদ্দিন সিফাত উপস্থিত ছিলেন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ