৩০ জুন ২০২০, ১৯:৫২

অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমে কলেজগুলোকে জাতীয়ভাবে ভূমিকা রাখতে হবে: উপাচার্য

  © টিডিসি ফটো

দেশব্যাপী কলেজ শিক্ষকদের অনলাইনভিত্তিক পাঠদান আরও জোরদার করার আহবান জানিয়ে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. হারুন-অর-রশিদ বলেছেন, সারাদেশে কলেজগুলোতে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের পাঠদান সুনিশ্চিত করতে এবং তাদের কল্যাণের জন্য যা যা করা দরকার তার সবকিছু করার জন্য প্রস্তুত রয়েছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়।

আজ মঙ্গলবার (৩০ জুন) অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম নিয়ে দেশব্যাপী ১০০টি কলেজের শিক্ষকের সঙ্গে ঝুম অ্যাপসের মধ্যমে অনুষ্ঠিত বৈঠকে সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন উপাচার্য।

অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অধিভুক্ত কলেজগুলোতে জাতীয়ভাবে ভূমিকা রাখতে হবে উল্লেখ করে প্রফেসর ড. হারুন-অর-রশিদ বলেন, আমাদের ন্যাশনাল রোল প্লে করতে হবে। কারণ দেশের মোট শিক্ষার্থীর ৭০ শতাংশ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বিভিন্ন কলেজে পড়াশোনা করছেন। সুতরাং এটিই আমাদের কাছে এখন টপ প্রায়োরিটি।

তিনি বলেন, সীমাবদ্ধতা থাকা সত্ত্বেও অনেক কলেজ অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। এটা প্রশংসার দাবি রাখে। এই কোভিড-১৯ দূর্যোগকালীন সময়ে আমরা বসে থাকতে পারি না। সবাইকেই যার যার অবস্থান থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে রোল প্লে করতে হবে।

বৈঠকে অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমের ওপর বিশেষজ্ঞ মতামত প্রকাশ করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটির উপাচার্য প্রফেসর ড. মুনাজ আহমেদ নূর। সভায় কলেজগুলোর শিক্ষকেরা অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা তাদের সমস্যা, সম্ভাবনা ও চ্যালেঞ্জগুলো তুলে ধরেন।

উপাচার্য সংশ্লিষ্ট কলেজের সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দিয়ে বলেন, অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনায় জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় সকল ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করছে। কীভাবে এটিকে আরও বেগবান করা যায় সে বিষয়েও কাজ করছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়।

সভায় উপ-উপাচার্য প্রফেসর ড. মো: মশিউর রহমান, ট্রেজারার প্রফেসর মো. নোমান উর রশীদ ও রেজিস্ট্রার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) ও ডিন প্রফেসর ড. মো. নাসির উদ্দীন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এদিকে, আগামীকাল বৃহস্পতিবার (১ জুলাই) বিকাল তিনটায় শিক্ষার্থীদের সঙ্গে অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম নিয়ে বৈঠক করবেন উপাচার্য।