জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়

উপাচার্যপন্থী শিক্ষকদের মৌন মিছিল

মৌন মিছিল  © টিডিসি ফটো

একনেক কর্তৃক অনুমোদিত অধিকতর উন্নয়ন প্রকল্পে'র মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়নে বিঘ্ন সৃষ্টি ও উপাচার্যের বিরুদ্ধে মিথ্যাচারের প্রতিবাদে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে মৌন মিছিল করেছে উপাচার্যপন্থী শিক্ষক। আজ সোমবার বেলা সাড়ে ১১টায় সমাজবিজ্ঞান অনুষদ থেকে মিছিলটি শুরু হয়ে ক্যাম্পাসের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে পুরাতন রেজিস্টার ভবনের সামনে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মাধ্যমে শেষ হয়।

সমাবেশে শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক অজিত কুমার মজুমদার বলেন, ‘আসুন আমরা আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করি। উপাচার্য মহোদয়ও সকলকে আহবান জানিয়েছে। কিন্তু এর মাঝে পরিকল্পনা বাস্তবায়নে বাধা দেওয়া ও উপাচার্যের বিরুদ্ধে মিথ্যাচার করা সত্যিই লজ্জাজনক বিষয়।’

বঙ্গবন্ধু শিক্ষক পরিষদের সভাপতি অধ্যাপক আব্দুল মান্নান চৌধুরী বলেন, ‘এই উপাচার্য দ্বিতীয় বারের মতো দায়িত্বে আছেন। সরকারের কাছে অনেক দেনা-দরবার করে এই প্রকল্পের অর্থায়ন ও অনুমোদন নিয়ে এসেছেন। অথচ একটি গোষ্ঠী এটাকে বাধা দিতে চেষ্টা করছে। আমি তাদের বলে দিতে চাই কোন শক্তিই এর বাস্তবায়নে বাধা দিতে পারবেনা।’

পরিসংখ্যান বিভাগের অধ্যাপক আলমগীর কবিরের সঞ্চালনায় সমাবেশে আরো উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু শিক্ষক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক বশির আহমেদ, সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ভারপ্রাপ্ত ডিন অধ্যাপক রাশেদা আখতারসহ প্রায় ৭০জন শিক্ষক।

উল্লেখ্য, বিশ্ববিদ্যালয়ে বর্তমানে প্রায় সাড়ে ১৪০০ কোটি টাকার একটি উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ চলছে। এই প্রকল্পের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় একটি মহাপরিকল্পনা নিয়েছে। তবে ওই মহাপরিকল্পনাকে ‘অপরিকল্পিত’ দাবি করে আন্দোলন করে আসছিল শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের একাংশ। এর মধ্যে ওই প্রকল্পের কাজ সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হওয়ার জন্য ছাত্রলীগকে দুই কোটি টাকা দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ ওঠে। পরের দিন থেকে টাকা লেনদেনের অভিযোগের বিচার বিভাগীয় তদন্তসহ তিন দফা দাবিতে ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ ব্যানারে আন্দোলনে নামেন শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। শিক্ষকদের একটি অংশ কর্মবিরতি পালন করছেন।


মন্তব্য