খুবিতে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উপলক্ষে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় (খুবি) ফিশারিজ এন্ড মেরিন রিসোর্স টেকনোলজি (এফএমআরটি) ডিসিপ্লিনের উদ্যোগে ‘মাছ চাষে গড়বো দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উদযাপিত হয়েছে। এ উপলক্ষে এক বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা ও পোনা অবমুক্তকরণের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে দশটায় উপাচার্যের নেতৃত্বে একটি র‍্যালী বের করা হয়। র‌্যালিটি আচার্য জগদীশচন্দ্র বসু একাডেমিক ভবনের সামনে থেকে শুরু করে হাদী চত্বর হয়ে কটকা স্মৃতিস্তম্ভের পুকুরের পাশে গিয়ে শেষ হয়। সেখানে প্রধান অতিথি বেলুন উড়িয়ে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহের উদ্বোধন করেন।

পরে প্রধান অতিথি পুকুরে মাছের পোনা অবমুক্ত করেন এবং জাল ফেলে পুকুরে মাছ ধরা প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন। এরপর কটকা স্মৃতিস্তম্ভের অদূরে উন্মুক্ত স্থানে আলোচনা পর্ব অনুষ্ঠিত হয়।

অলোচনা পর্বে প্রধান অতিথি উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান বলেন, অতীতের তুলনায় দেশের জনসংখ্যা বাড়লেও নদ-নদী জলাভূমি কমেছে। এ অবস্থায় মাছের ব্যাপক ঘাটতি থাকার কথা থাকলেও মাছের উৎপাদন বেড়েছে। এমনকি আমরা বিশ্বে মাছ উৎপাদনে প্রথম সারিতে চলে এসেছি।

তিনি বলেন, ঠিক একইভাবে খাদ্য উৎপাদনেও আমরা সফল হয়েছি। এই সাফল্যের পিছনে বর্তমান সরকারের নানামুখী প্রচেষ্টা এবং বিজ্ঞানীদের নিরন্তর গবেষণার কথা উল্লেখ করে তাদের এই প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখে সর্বত্র মাছের পরিকল্পিত চাষ হোক সে প্রত্যাশা তিনি ব্যক্ত করেন।

আলোচনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ট্রেজারার প্রফেসর সাধন রঞ্জন ঘোষ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন এফএমআরটি ডিসিপ্লিনের প্রধান প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আব্দুর রউফ।

পরে প্রধান অতিথি এ উপলক্ষে আয়োজিত কুইজ প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ করেন। এ সময় বিভিন্ন স্কুলের ডিন, ডিসিপ্লিন প্রধান ও সংশ্লিষ্ট ডিসিপ্লিনের শিক্ষক-শিক্ষার্থী এবং কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ