গেজেটভুক্তির ১০ মাসেও সরকারি সুবিধা নেই ২৭১ কলেজের

গেজেট ভুক্তির ১০ মাসেও সরকারি সুবিধা নেই ২৭১ কলেজের। অবিলম্বে গেজেটভুক্ত ২৭১টি কলেজে  সরকারি কার্যক্রম চালুর দাবিতে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধন করেছে সাধারণ শিক্ষার্থীরা। রোববার দুপুর ২টার দিকে সাভার সরকারি কলেজ এবং শ্রীপুর মুক্তিযোদ্ধা রহমত আলী কলেজের শিক্ষার্থীরা এই মানববন্ধন করেন।

মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা বলেন, ২৭১ টি কলেজ সরকারি করা হলেও আগের নিয়মেই তাদের কাছ থেকে পরীক্ষার ফি নেয়া হচ্ছে। যার ফলে অনেক শিক্ষার্থী তাদের পড়া-লেখা চালিয়ে যেতে পারছেন না। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা দেয়ার দীর্ঘ ১০ মাস অতিবাহিত হলেও এখনো এই কলেজ গুলোর কার্যক্রম সরকারি করা হয়নি বলেও জানান তারা।

বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ সাভার সরকারি কলেজ শাখার আহবায়ক সোহেল রানা দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে বলেন, অবিলম্বে ২৭১টি সরকারি কলেজের কার্যক্রম সরকারি করতে হবে। অতিরিক্ত ফি নেয়ার কারণে সাভার সরকারি কলেজের প্রথম বর্ষের ৪০ শতাংশ শিক্ষার্থী পরীক্ষার জন্য ফরম ফিলাম করতে পারেনি। তাদের দায়িত্ব কে নেবে? মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা এবং গেজেট প্রকাশ করা হলেও কেন আমাদের কলেজগুলোর কার্যক্রম সরকারি হচ্ছে না তা আমার বোধগম্য না।

বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ সাভার সরকারি কলেজের যুগ্ম আহবায়ক সালেহ আহমেদ বলেন, কলেজের নাম পরিবর্তন হয়ে সরকারি হয়েছে কিন্তু শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে আগের আদলেই পরীক্ষার ফি নেয়া হচ্ছে। অবিলম্বে এই সমস্যার সমাধান করতে হবে। সমাধান না হলে আমরা সাধারণ শিক্ষার্থীদের নিয়ে আবারো রাস্তায় নামতে বাধ্য হব।

উল্লেখ্য, যে সকল উপজেলায় সরকারি কলেজ নেই সেই সকল উপজেলায় একটি করে সরকারি কলেজ করার ঘোষণা দেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী। ২০১৮ সালের ১২ আগষ্ট প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে দেশের বিভিন্ন উপজেলার ২৭১টি বেসরকারি কলেজ সরকারি করা হয়।


মন্তব্য