এক ক্লিকে দেখুন প্রাথমিক শিক্ষকের ফল

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নিয়োগের লিখিত পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। লিখিত পরীক্ষায় মোট ৫৫ হাজার ২৯৫ জন উত্তীর্ণ হয়েছেন। রোববার (১৫ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় এ ফলাফল প্রকাশ করা হয়।

ফলাফল প্রকাশ বিষয়ে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক ড. এ এফ এম মনজুর কাদির গণমাধ্যমকে  বলেন, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ‘সহকারী শিক্ষক নিয়োগ ২০১৮’ ৬৩ জেলায় আয়োজিত লিখিত পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। সারাদেশে লিখিত পরীক্ষায় মোট ৫৫ হাজার ২৯৫ জন প্রার্থী পাস করেছেন।

জেলাভিত্তিক ফল দেখতে নিচের জেলার নামের উপর ক্লিক করুন। এখানে পার্বত্য তিন জেলা ছাড়া ৬১ জেলার ফল প্রকাশ করা হয়েছে।ক্লিক করলে জেলার একটি পিডিএফ ফাইল ওপেন হবে। সেখান থেকে খোঁজে নিন আপনার নাম।

বাগেরহাট

বরগুনা

বরিশাল

ভোলা

বগুড়া

ব্রাহ্মণবাড়িয়া

চাঁদপুর

চাঁপাইনবাবগঞ্জ

চট্টগ্রাম

চুয়াগাঙ্গা

কক্সবাজার

কুমিল্লা

ঢাকা

দিনাজপুর

ফরিদপুর

ফেনী

গাইবান্ধা

গাজীপুর

গোপালগঞ্জ

হবিগঞ্জ

জয়পুরহাট

জামালপুর

যশোর

ঝালকাটি

ঝিনাইদহ

খুলনা

কিশোরগঞ্জ

কুড়িগ্রাম

কুষ্টিয়া

লালমনিরহাট

লক্ষ্মীপুর

মাদারীপুর

মানিকগঞ্জ

মাগুরা

মেহেরপুর

মৌলভীবাজার

মুন্সিগঞ্জ

ময়মনসিংহ

নওগাঁ

নড়াইল

নারায়ণগঞ্জ

নরসিংদী

নাটোর

নেত্রকোণা

নীলফামারি

নোয়াখালী

পাবনা

পঞ্চগড়

পটুয়াখালী

পিরোজপুর

রাজশাহী

রংপুর

রাজবাড়ী

সাতক্ষীরা

শরীয়তপুর

শেরপুর

সিরাজগঞ্জ

সুনামগঞ্জ

সিলেট

টাঙ্গাইল

ঠাকুরগাঁও

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের ফলাফল দেখতে ক্লিক করুন...

বি.দ্র: লিংকটি গুগল ড্রাইভের লিংক। মোবাইল বা কম্পিউটারে গুগল একাউন্ট খোলা থাকা লাগবে। যারা লিংককে প্রবেশ করতে সমস্যায় পড়েন তারা গুগল একাউন্ট চেক করে নেন।

আরও যেভাবে জানতে পারবেন ফলাফল: প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার রেজাল্ট পাওয়া যাবে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর অফিশিয়াল ওয়েবসাইট http://www.dpe.gov.bd/ তে। চার ধাপের এ পরীক্ষার ফলাফল পিডিএফ আকারে প্রকাশ করা হবে৷

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের ফলাফল দেখতে ক্লিক করুন...

এর আগে আজ রাতে ফলাফল প্রকাশ করা হতে পারে বলে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে আভাস পাওয়া যায়। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নিয়োগের লিখিত পরীক্ষার প্রথম ধাপ গত ২৪ মে, দ্বিতীয় ধাপ ৩১ মে, তৃতীয় ধাপ ২১ জুন এবং চতুর্থ ধাপের পরীক্ষা ২৮ জুন অনুষ্ঠিত হয়।

গত বছরের ৩০ জুলাই ‘সহকারী শিক্ষক’ নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়। গত ১ থেকে ৩০ আগস্ট পর্যন্ত অনলাইনে আবেদন কার্যক্রম শেষ হয়।

১২ হাজার আসনের বিপরীতে সারাদেশ থেকে ২৪ লাখ ৫ জন প্রার্থী আবেদন করেন। সে হিসাবে প্রতি আসনে প্রায় ২০০ প্রার্থী লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন।


মন্তব্য

এ বিভাগের আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ