শেখ হাসিনাকে দেশে আসতে দেয়নি জিয়া: শোভন

‘৩৮ বছর আগে আমাদের মমতাময়ী মা দেশরত্ন শেখ হাসিনাকে বাংলাদেশে আসতে দেয়নি বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমান। তবে আমাদের মমতাময়ী মা দেশের কথা চিন্তা করে, দেশের মানুষের কথা চিন্তা করে নিজের জীবন বাজি রেখে এই বাংলাদেশে এসেছিলেন। তখন জিয়াউর রহমান তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করেছিল।’

শুক্রবার (১৭ মে) শেখ হাসিনার প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে এক র‌্যালি বের বাংলাদেশ ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা। এসময় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে আয়োজিত সমাবেশে ছাত্রলীগ সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন এ কথা বলেন। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হত্যাকাণ্ডের পর প্রায় ছয় বছর নির্বাসিত জীবন কাটিয়ে ১৯৮১ সালের ১৭ মে দেশে ফেরেন তার জ্যেষ্ঠ কন্যা শেখ হাসিনা।

ছাত্রলীগের সভাপতি বলেন, বঙ্গবন্ধু তার জীবন দিয়ে গেছেন বাংলাদেশের মানুষের জন্য তেমনি তার যোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা নিজের জীবনকেও এদেশের মানুষের জন্য দিয়ে যাচ্ছেন। তিনি এদেশের মানুষকে আত্মমর্যাদা দিয়েছেন। এদেশের মানুষকে ভাত ও ভোটের অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছেন ।

ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক ও ডাকসুর জিএস গোলাম রব্বানী বলেন, ছাত্রলীগের ইতাহাস বিজয়ের ইতিহাস। বাংলাদেশ ছাত্রলীগ শেখ হাসিনার ভ্যানগার্ড। বাংলাদেশ ছাত্রলীগ থাকতে কোন অপশক্তি শেখ হাসিনার কোন ক্ষতি করতে পারবে না।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস বলেন,আজকে বাংলাদেশের অনেক উন্নতি হয়েছে। বাংলাদেশকে জাপানের সাথে তুলনা করা হয়। এই উন্নতিতে ঈর্ষানিত জয়ে বার বার শেখ হাসিনাকে হত্যার চেষ্টা করা হচ্ছে। আমরা এর ধিক্কার জানাই। বাংলাদেশ ছাত্রলীগ থাকতে কোন অপশক্তি শেখ হাসিনার কোন ক্ষতি করতে পারবে না।

শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে উপস্থিত ছিলেন, ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শুভন,সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সঞ্জিত চন্দ্র দাস, সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন, উত্তরে সভাপতি ইব্রাহিম খলিল, সাধারণ সম্পাদক সাইদুর রহমান হৃদয়, দক্ষিনের সভাপতি মেহেদী হাসান, সাধারণ সম্পাদক জোবায়ের আহমেদ সহ আরো অনেক নেতা উপস্থিত ছিলেন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ