আয়মানকে হত্যার হুমকি, বললেন— দয়া করে বাঁচতে দিন

আয়মান সাদিক  © ফাইল ফটো

অনলাইনের জনপ্রিয় প্ল্যাটফর্ম টেন মিনিট স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা আয়মান সাদিককে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হয়েছে। বিষয়টি জানতে পেরে পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইমের (সিটিটিসি) কর্মকর্তারা তাকে নজরদারি শুরু করেছেন।

বিষয়টি সম্পর্কে সিটিটিসির উপকমিশনার সাইফুল ইসলাম গণমাধ্যমকে বলেন, আয়মান ও তার টেন মিনিটস স্কুলকে হুমকি দিয়ে কিছু ভিডিও তৈরি হয়েছে। এগুলো তৈরি ছড়ানোর পেছনে কারা রয়েছেন, তা তদন্ত হচ্ছে। কর্মকর্তারা আরো জানান, ভিডিও দেখে মনে হয়েছে এর সঙ্গে আনসার আল ইসলামের যোগসূত্র আছে। তাদের পরিচালিত বিভিন্ন চ্যানেলে এটি আপলোড ও শেয়ার হয়েছে।

এদিকে হত্যার হুমকি পেয়ে আয়মান সাদিক তাঁর ইউটিউব চ্যানেলে ‘দয়া করে বাঁচতে দিন’ শিরোনামে একটি ভিডিও আপলোড করেছে। তিনি বলেছেন, ‘আমার বাসায় এখন এমন একটা পরিস্থিতি হয়েছে, আমি কিছুক্ষণ পর পর আমার বাবা-মাকে দেখছি এবং তারাও আমাকে নজরে রাখছে আমি আদৌ ঠিক আছি কিনা।

ফেসবুক-ইউটিউব সব জায়গায় আমাকে এবং টেন মিনিট স্কুলের অনেক জনকে মেরে ফেলার জন্য বলা হচ্ছে। তারা বলছে, এই মুরতাদকে আপনার যে যেখানে পাবেন জাহান্নামে পাঠিয়ে দেবেন। আর এসব পোস্ট শত শত না হাজার হাজার মানুষ শেয়ার করছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমি জানিনা আমাদেরকে কীভাবে প্রমাণ করা দরকার যে আমার কোন প্রোপাগান্ডা করছি না। আমাদের কোন সিক্রেট এজেন্ডা নেই। এটা বলার আমার আর ভাষা নেই। এরপরও আমরা ধরে নিচ্ছি, আমাদের ভাষাগত ত্রুটি ছিল। যেভাবে বিষয়গুলো আমরা বুঝাতে চেয়েছি সেগুলো সেভাবে বুঝাতে পারিনি।...আমরা এর জন্য দুঃখিত।’


মন্তব্য