জরুরী প্রয়োজন ছাড়া নোয়াখালীতে জনসাধারণের চলাচল নিষেধ

  © টিডিসি ফটো

করোনাভাইরাসের কারণে ভয়াবহ পরিস্থিতির উদ্ভব হওয়ার আগেই ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে নোয়াখালীতে আজ বুধবার ২৫ মার্চ থেকে জরুরী প্রয়োজন ছাড়া অনির্দিষ্টকালের জন্য জেলার সকল দোকানপাট ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার নির্দেশ দিয়েছে নোয়াখালী জেলা প্রশাসন।

তবে কাঁচাবাজার, মুদি ও ওষুধের দোকান এ নিষেধাজ্ঞার আওতামুক্ত থাকবে। আদেশ অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে দেশের প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এ ব্যাপারে সচেতনতার জন্য জেলার বিভিন্ন স্থানে মাইকিং করে জানানো হয়েছে।

আজ বুধবার নোয়াখালী জেলা ম্যাজিস্ট্রেট স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

এ বিষয়ে নোয়াখালীর সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মো. রোকনুজ্জামান খান দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে জানান, মানুষের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে এবং জনস্বার্থে এ সিদ্ধান্তগুলো নেওয়া হয়েছে। আদেশ মানতে তিনি সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

এর আগে, করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় নোয়াখালীর ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালসহ জেলার ৯টি উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী আইসোলেশন ওয়ার্ড খোলা হয়েছে। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার সুবিধার্থে জেলার সদর হাসপাতালে ৫ শয্যা বিশিষ্ট একটি আইসোলেশন ওয়ার্ড প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

জেলার সিভিল সার্জন ডা. মোমিনুর রহমান জানান, জেলার ৯টি উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আইসোলেশন ওয়ার্ড এ ২/৩টি করে শয্যা প্রস্তুত রাখা হয়েছে। হাসপাতালের সুপারিনটেনডেন্ট ডা. খলিল উল্যাহ ও জেলার সিভিল সার্জন ডা. মোমিনুর রহমান জানান, নোয়াখালীতে এখন পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত কোনও ব্যক্তির সন্ধান মেলেনি।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ