দেশে ফিরেছে সুবীর নন্দীর মরদেহ

সঙ্গীতশিল্পী সুবীর নন্দী
সঙ্গীতশিল্পী সুবীর নন্দী  © সংগৃহীত

সিঙ্গাপুর থেকে দেশে পৌঁছেছে প্রখ্যাত সঙ্গীতশিল্পী সুবীর নন্দীর মরদেহ। বুধবার সকাল ৬টার দিকে রিজেন্ট এয়ারওয়েজের একটি বিমানে করে ঢাকায় তার মরদেহ পৌঁছায়। সেখান থেকে মরদেহ নেয়া হয় রাজধানীর ২৫সি গ্রিন রোডের গ্রিন ভিউ অ্যাপার্টমেন্টে। পরে সকাল ১১টার দিকে সকলের শ্রদ্ধা জানানোর জন্য মরদেহ নেয়া হবে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে।

তারপর রামকৃষ্ণ মিশনে নেয়া হবে একুশে পদকজয়ী সঙ্গীতশিল্পী সুবীর নন্দীর মরদেহ। দুপুরে সবুজবাগে বরদেশ্বরী কালীমন্দির ও শ্মশানে একুশে পদক পাওয়া সংগীতশিল্পী সুবীর নন্দীর শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হবে।

সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন এ কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় ভোর সাড়ে চারটায় মারা যান।

প্রসঙ্গত, দীর্ঘদিন ধরে কিডনি ও হার্টের অসুখে ভুগছিলেন সুবীর নন্দী। গত ১২ এপ্রিল পরিবারের সবাই মিলে মৌলভীবাজারে আত্মীয়ের বাড়িতে যান। সেখানে একটি অনুষ্ঠান ছিল। ১৪ এপ্রিল ঢাকায় ফেরার ট্রেনে ওঠার জন্য বিকেলে মৌলভীবাজার থেকে শ্রীমঙ্গলে আসেন তারা।

এ সময় ট্রেনেই অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। তারপর শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় রাত ১১টার দিকে তৃপ্তি করের সহযোগিতা ও তত্ত্বাবধানে শিল্পীকে দ্রুত সিএমএইচে নিয়ে যাওয়া হয়।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশ মোতাবেক সিএমএইচ থেকে সিঙ্গাপুর গত ৩০ এপ্রিল সিঙ্গাপুরে নেয়া হয় তাকে সুচিকিৎসার জন্য।

১৯৮১ সালে তার প্রথম একক অ্যালবাম ‘সুবীর নন্দীর গান’ বাজারে আসে ডিসকো রেকর্ডিংয়ের ব্যানারে। সুবীর নন্দী প্রথম গান করেন ১৯৭৬ সালে আবদুস সামাদ পরিচালিত ‘সূর্যগ্রহণ’ চলচ্চিত্রে। চলচ্চিত্রে প্লেব্যাক করে পাঁচবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেছেন তিনি।


মন্তব্য