ইতালিতে এই মুহূর্তে টক অব দ্য কান্ট্রি হচ্ছে ‘বাংলাদেশ স্ক্যান্ডাল’

ইতালির একটি পত্রিকায় বাংলাদেশে করোনা পরীক্ষার খবর

ইতালির শীর্ষ জাতীয় দৈনিক ইল মেসসাজ্জেরোর আজকের প্রধান শিরোনাম ‘‘দাল বাংলাদেশ কন তেস্ত ফালসি’’ অর্থাৎ ‘‘বাংলাদেশ থেকে ভূয়া টেস্ট করিয়ে’’। বাংলাদেশের দুর্নীতিবাজ লোকদের সরাসরি দায়ী করা হয়েছে কোভিড-১৯ টেস্ট না করিয়ে নগদ অর্থের বিনিময়ে করোনা মুক্তির ভূয়া সার্টফিকেট ধরিয়ে দেবার জন্য।

সমগ্র ইতালিতে এই মুহূর্তে টক অব দ্য কান্ট্রি হচ্ছে ‘বাংলাদেশ স্ক্যান্ডাল’। বাংলাদেশি মানেই যেন এক একটি ‘করোনা ভাইরাস’।

৬ জুলাই সোমবার রাজধানী রোমের প্রধান বিমানবন্দর লিওনার্দো দ্য ভিঞ্চির ৫ নাম্বার টার্মিনাল ফিল্ড হাসপাতালে রূপ নেয় শুধু বাংলাদেশ থেকে আসা চার্টার্ড ফ্লাইটের যাত্রীদের তাৎক্ষণিক টেস্ট করাতে। ২৭৪ জন যাত্রীর মধ্যে ৩৬ জন পজিটিভ রোগীর আইসোলেশন নিশ্চিত করা হয়।

বাকিদের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনের জন্য পাঠানো হয় অভিজাত হোটেল হিল্টনে। যদিও রোমের তারকা হোটেলের আতিথেয়তায় মন ভরছে না বাংলাদেশিদের। হোটেল ছেড়ে বাড়ি যেতে তাদের তুলকালাম। গত এক মাসে ঢাকা থেকে আসা প্রায় হাজার দেড়েক বাংলাদেশি যাদেরকে এয়ারপোর্টে করোনা টেস্ট না করিয়ে শুধুমাত্র শরীরের তাপমাত্রা মেপে বাড়িতে পাঠিয়ে দেয়া হয়েছিলো হোম কোয়ারেন্টিনের জন্য।

তাদের মধ্যে প্রায় অর্ধেক কোভিড-১৯ পজিটিভ এমন আশংকা প্রকাশ করছেন ইতালির স্বাস্থ্য বিভাগের নীতিনির্ধারকেরা। ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো বাংলাদেশিরা সরকারি বিধিবিধানকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে রাজধানী রোমসহ বিভিন্ন শহরে যত্রতত্র ঘুরে বেড়িয়েছে ফ্রি স্টাইলে এমন সুনিশ্চিত তথ্যপ্রমাণ এখন এদেশের প্রশাসনের হাতে।

লেখক: ফ্রিল্যান্স সাংবাদিক


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ