টিকার তথ্য চুরির চেষ্টা চীনা হ্যাকারদের, মার্কিন রিপোর্ট

করোনা টিকার গবেষণা ও বানানোর পদ্ধতি সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য চুরির চেষ্টার অভিযোগ উঠল চীনা হ্যাকারদের বিরুদ্ধে। আমেরিকার ফেডারাল ব্যুরো অফ ইনভেস্টিটিকার তথ্য চুরির চেষ্টা চীনা হ্যাকারদের, মার্কিন রিপোর্টগেশন (এফবিআই) ও সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞদের অভিযোগ, ওই সব গুরুত্বপূর্ণ তথ্যাদি চুরির জোর চেষ্টা চালাচ্ছে চীনা হ্যাকাররা। ওই হ্যাকারদের সঙ্গে চীনা সরকারেরও যোগসাজশ রয়েছে। চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মুখপাত্র অবশ্য এই অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন।

মার্কিন দৈনিক ‘নিউ ইয়র্ক টাইমস’ ও ‘দ্য ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল’ সোমবার এই খবর জানিয়েছে। ওই দুই দৈনিক সূত্রের খবর, এফবিআই এবং প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসনের অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা (হোমল্যান্ড সিকিওরিটি) দফতর এ ব্যাপারে দিনকয়েকের মধ্যেই একটি সতর্কতা জারি করতে চলেছে। কোভিড-১৯ ভাইরাসের টিকা যত তাড়াতাড়ি সম্ভব বানানোর জন্য এখন আমেরিকায় জোরকদমে কাজ চলছে সরকারি ও বেসরকারি স্তরে। টিকা নিয়ে গবেষণা ও তা দ্রুত বানানোর জন্য যুদ্ধকালীন তৎপরতায় কাজ করছে আমেরিকার বিভিন্ন ওষুধ প্রস্তুতকারক সংস্থাগুলি।

এফবিআই এবং মার্কিন সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞরা এমনও দাবি করেছেন, করোনা রোগীদের কী ভাবে চিকিৎসা করা হচ্ছে আর কী ভাবে তাঁদের কোন কোন ধরনের পরীক্ষা করা হচ্ছে আমেরিকায়, তার যাবতীয় তথ্যাদি ও মেধাসত্ত্ব চুরিরও চেষ্টা চালাচ্ছে ওই চীনা হ্যাকাররা।

এফবিআই এবং মার্কিন সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞদের এই সব অভিযোগ অবশ্য পুরোপুরি অস্বীকার করেছেন চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মুখপাত্র ঝাও লিজিয়ান। জানিয়েছেন, শুধু কোভিডের ক্ষেত্রে নয়; চীন সব রকমের সাইবার হানাদারিরই চরম বিরোধী।

ঝাওয়ের কথায়, ‘‘কোভিড-১৯-এর টিকা নিয়ে গবেষণা ও চিকিৎসায় আমরাই বিশ্বকে পথ দেখাচ্ছি। এমন পরিস্থিতিতে গুজব রটিয়ে চিনকে শুধু শুধুই অভিযোগে বিদ্ধ করা হচ্ছে। কোনও তথ্যপ্রমাণ ছাড়াই চিনকে শূলে চড়ানো হচ্ছে।’’

ও দিকে, দু’টি মার্কিন দৈনিক জানিয়েছে, শুধু চিনা হ্যাকাররাই নয়; আমেরিকায় কোভিড-১৯ টিকার তথ্যাদি চুরির চেষ্টা চালাচ্ছে ইরান, উত্তর কোরিয়া ও রাশিয়ার হ্যাকাররাও। এফবিআই এবং মার্কিন সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞদের অভিযোগ, ইরান, উত্তর কোরিয়া ও রাশিয়ার হ্যাকাররাও তাদের দেশের সরকারগুলির সঙ্গে যোগাযোগ রেখেই এই সব চেষ্টা চালাচ্ছে। এ ব্যাপারে গত সপ্তাহে ব্রিটেন ও আমেরিকা সরকারি ভাবে একটি যৌথ বিবৃতিও দিয়েছিল। তাতে বলা হয়েছিল, এই হ্যাকার চক্রে রয়েছে সংগঠিত অপরাধীরা। তারা বহু পরিচিতি ও বহু ব্যবহৃত পাসওয়ার্ড পাঠিয়ে কোভিড সংক্রান্ত তথ্যাদি চুরির চেষ্টা করছে।


মন্তব্য