অতিরিক্ত ফি নেয়া কলেজের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে সরকার

  © সংগৃহীত

দেশের বেসরকারি কলেজগুলোতে অতিরিক্ত সেশন ফি আদায়ের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট সকল বেসরকারি কলেজের তালিকা চাওয়া হয়েছে। আগামী তিনদিনের মধ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরকে (মাউশি) মন্ত্রণালয়ে এ তালিকা পাঠাতে হবে।

নির্দেশনায় বলা হয়, অতিরিক্ত ফি আদায় করা বেসরকারি কলেজগুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। দেশের বিভিন্ন স্থানে এমপিওভুক্ত প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে ওঠা প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানগুলোর দৌরাত্ম সীমা অতিক্রম করেছে। এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে অতিরিক্ত সেশন ফি ছাড়াও চার-পাঁচগুণ বেশি টাকায় বই, খাতাসহ শিক্ষা উপকরণ কিনতে বাধ্য করা হচ্ছে।

শুধু তাই নয়, শিক্ষার্থীদের কলেজ ড্রেসও সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান থেকে নিতে বাধ্য করা হচ্ছে। মঙ্গলবার (২৭ আগস্ট) মাউশির সহকারী পরিচালক (কলেজ-৩) ফারহানা আক্তার স্বাক্ষরিত এ আদেশ জারি করা হয়।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের নামে এমন ‘ডাকাতি কারবার’ বন্ধ করতে বগুড়ার আব্দুল মান্নান আকন্দ নামে এক ব্যক্তি জনস্বার্থে হাইকোর্টে একটি রিট পিটিশন করেন। ওই রিটের পরিপ্রেক্ষিতে গত ২ জুলাই হাইকোর্টের বিচারপতি জেবিএম হাসান এবং বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের বেঞ্চ মাত্রাতিরিক্ত সেশন ফি নেয়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোকে বাড়তি টাকা অভিভাবকদের কাছে ফিরিয়ে দেয়ার আদেশ দেন।

উচ্চ আদালতের নির্দেশের পর দেশের বেসরকারি কলেজে অতিরিক্ত সেশন ফি আদায়ের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে এ তালিকা চাইলো সরকার। মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের (মাউশি) আঞ্চলিক উপ-পরিচালকদের আগামী তিন কর্মদিবসের মধ্যে এ তালিকা দিতে হবে। এ নির্দেশনা পাওয়ার পর মাউশি কর্মকর্তারা এসব কলেজের তালিকা তৈরিতে কাজ শুরু করেছেন বলেও জানা গেছে।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ