অনলাইন ক্লাসের জন্য মাসে ১০ হাজার টাকা পাচ্ছেন শাবিপ্রবি শিক্ষকরা

অনলাইন ক্লাসের জন্য মাসে ১০ হাজার টাকা পাচ্ছেন শাবিপ্রবি শিক্ষকরা
  © ফাইল ফটো

দেশে চলমান কভিড-১৯ এর সংক্রমণ রোধে গত ১৭ মার্চ থেকে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। উচ্চ শিক্ষার সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলো শিক্ষার্থীদের ক্ষতি পুষিয়ে নিতে অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করছে। আর অনলাইনে ক্লাস পরিচালনা করতে প্রত্যেক শিক্ষককে ১০ হাজার টাকা করে আর্থিক সহায়তা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (শাবিপ্রবি)।

বুধবার (২২ জুলাই) শাবিপ্রবি’র ২১৭তম সিন্ডিকেট সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে । সিন্ডিকেট সভায় উপস্থিত ছিলেন এমন একাধিক সদস্য বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বলেন, অনলাইনে ক্লাস চালাতে সকল শিক্ষকদের আমরা লজিস্টিক সাপোর্ট দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। শিক্ষকদেরকে অনলাইনে ক্লাস নিতে হবে। তাদেরও কিছু সাপোর্টের দরকার আছে। শিক্ষকদেরকে আমরা ‘গ্রাফিক্স প্যাড’ দেব যাতে তারা অনলাইনে ক্লাস সুন্দরভাবে নিতে পারে।

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গেছে, গত ১৯ জুলাই থেকে প্রাথমিকভাবে অনলাইনে পরবর্তী সেমিস্টারের ক্লাস শুরু করেছে শাবিপ্রবি। ঈদুল আজহার পর থেকে পুরোপুরি অনলাইন ক্লাস শুরু করবে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। আর এ ক্লাস পরিচালনা করতে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদেরকে নির্দিষ্ট পরিমাণে আর্থিক সহায়তার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে উপাচার্য বলেন, যে সকল শিক্ষার্থীর অনলাইস ক্লাসে অংশ নেওয়ার জন্য স্মার্ট ডিভাইস নেই তাদেরকে স্বল্পমূল্যে স্মার্ট কিনে দিতে আমরা আইসিটি মন্ত্রণালয়ের সাথে যোগাযোগ করছি। আশা করি শীঘ্রই এ নিয়ে আমরা একটি সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে পারবো। আর বিশ্ববিদ্যালয়ের জুনিয়র শিক্ষকদের ক্লাস নেওয়ার যন্ত্রপাতি কেনার জন্য বিনা সুদে ৫০ হাজার টাকা লোন দেওয়া হবে।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ