২ জুন থেকে সীমিত পরিসরে খুলছে বশেমুরবিপ্রবি

  © সংগৃহীত

করোনাভাইরাসের সংক্রমণের মধ্যে আগামী ৩১ মে থেকে দেশের সব সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ও অফিস-আদালত খুলছে। গতকাল বৃহস্পতিবার (২৮ মে) এক সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করে সরকারের মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। এদিকে, সরকারি এ সিদ্ধান্ত অনুসরণ করে আগামী ২ জুন থেকে সীমিত পরিসরে দাপ্তরিক কার্যক্রমসমূহ পরিচালনা করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ নিয়েছে গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বশেমুরবিপ্রবি) কর্তৃপক্ষ।

তবে বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলসমূহ এবং সব ধরনের শিক্ষা কার্যক্রম পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। আজ শুক্রবার (২৯ মে) বিশ্ববিদ্যালয়ের ডেপুটি রেজিস্ট্রার মো: মোরাদ হোসেন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ নির্দেশনা প্রদান করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সরকারি সিদ্ধান্ত মতে, ৩১ মে থেকে সকল সরকারি/আধাসরকারি/সায়ত্বশাসিত এবং বেসরকারি অফিসসমূহ নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় খোলা থাকবে। ফলে এই বিশ্ববিদ্যালয়ে ২ জুন থেকে দাপ্তরিক কার্যক্রম ফ্যাকাল্টি প্রধান/বিভাগীয় প্রধান/দপ্তর প্রধানের তত্ত্বাবধানে সীমিত আকারে পরিচালিত হবে। এজন্য সংশ্লিষ্ট ফ্যাকাল্টি প্রধান বিভাগীয় প্রধান/দপ্তর প্রধানগণসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক/কর্মকর্তা/কর্মচারীগণকে কর্মস্থলে উপস্থিত থাকার জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হলো। তাছাড়া গত ১৭ মে থেকে ১ জুন পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ে ঈদুল ফিতরের পূর্বনির্ধারিত ছুটি আছে বলে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাশ, পরীক্ষা এবং আবাসিক হলসমূহ বন্ধ থাকবে।

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধের অংশ হিসেবে গত ১৮ মার্চ থেকে বশেমুরবিপ্রবির সকল শিক্ষা কার্যক্রম এবং ২২ মার্চ থেকে সকল প্রশাসনিক কার্যক্রম বন্ধ রেখেছে কর্তৃপক্ষ।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ