অনলাইন ক্লাসের ল্যাপটপ কিনতে গিয়ে ছিনতাইয়ের শিকার ঢাবি ছাত্রী

  © টিডিসি ফটো

ল্যাপটপ কিনতে যাওয়ার সময় দিনদুপুরে ছিনতাইয়ের শিকার হয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) এক ছাত্রী। এসময় বাধা দিতে গিয়ে ছিনতাইকারীদের হাতে মারধারের শিকার হয়েছেন ওই ছাত্রী ও তার মা। আর তার ভাইকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। আজ শনিবার (৪ জুলাই) দুপুরে মাগুরার শ্রীপুর থানার সর্দারপুর ইউনিয়নের সোনাকুন্ডী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় শ্রীপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন ছিনতাইয়ের শিকার বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃত্যকলা বিভাগের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী তাসনিয়া জামান স্বর্ণা। 

এ ব্যাপারে স্বর্ণা দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে বলেন, আমাদের অনলাইনে ক্লাস শুরু হওয়ায় ল্যাপটপ কিনতে যাচ্ছিলাম। এসময় হঠাৎ করে আমাদের গ্রামের চিহ্নিত ছিনতাইকারী ও মাদক ব্যবসায়ী আমাদের পথরোধ করে আমার কাছে থাকা ৮০ হাজার টাকা চেইন, কানের দুল ও ফোন ছিনিয়ে নেয়। আর আমার ভাই বাধা দিলে তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে রক্তাক্ত করে। এসময় আমাকে এবং আমার মাকেও অনেক মেরেছে।

তিনি আরও জানান, তার ভাইয়ের অবস্থা গুরুতর। পরে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় শ্রীপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন বলে জানান তিনি।

এ ব্যাপারে শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলী আহমেদ মাসুদ দ্যা ডেইলি ক্যাম্পাসকে বলেন, ঢাবি ছাত্রীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে আমরা একজন ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার করেছি। তার কাছ থেকে একটি মোবাইল ফোন ও একটি পার্স উদ্ধার করা হয়েছে। পার্সের মধ্যে ৯০০ টাকা ছিল। বাকি আসামীদের গ্রেপ্তারের জন্য আমাদের একটি টিম এখনো কাজ করছে। দ্রুতই তাদের গ্রেপ্তার করা হবে।

প্রসঙ্গত, চলতি সপ্তাহে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সব বিভাগ ও ইনস্টিটিউটে পুরোদমে অনলাইন ক্লাস শুরু করার কথা জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। তবে কিছু কিছু বিভাগ ও ইনস্টিটিউটে ইতোমধ্যে ক্লাস শুরু হয়েছে। দেশে করোনা সংক্রমনের মধ্যে গত মার্চের মাঝামাঝি সময় থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সব ধরনের ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ রয়েছে।


মন্তব্য