আবরার হত্যার বিচার দাবি মুফতি ফয়জুল করিমের

বুয়েটের মেধাবী ছাত্র আবরার হত্যার দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করেছেন ইসলামী আন্দলোন বাংলাদেশের সিনিয়র নায়েবে আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করিম। সোমবার (৭ অক্টোবর) ভোলা জেলায় আয়োজিত এক জনসভায় তিনি এই দাবি জানান।

জনসভায় তিনি বলেন, বুয়েটে রোববার একটা ছেলেকে হত্যা করা হয়েছে। সে নাকি শিবির করত, শিবির করুক তাই বলে তাকে হত্যা করার অধিকার সংবিধান আপনাকে দিয়েছে?

এ কেন মানবতা? কোন দেশ? বুয়েট বাংলাদেশের সর্বচ্চো বিদ্যাপিঠ যেখানে ভালো ছাত্ররা পড়াশুনা করে সেখানে একটা ছেলেকে শিবির সন্দেহে হত্যা করা হবে এটা মেনে নেয়া যায় না। ওদেরকে গ্রেফতার করুন, বিচার করুন, আর সহ্য করা যায় না।

তিনি আরো বলেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) উপাচার্য বাংলাদেশে বসে হিন্দুস্তান শ্লোগান দিবে তবুও সে তার পদে অধিষ্ঠিত থাকবে এটা কখনও মানা যায় না। দ্রুত এসকল দেশদ্রোহী অপকর্ম যারা করেন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ারও আহবান জানান তিনি।

গত রোববার দিবাগত রাত তিনটার দিকে বুয়েটের শের-ই-বাংলা হলের একতলা থেকে দোতলায় ওঠার সিঁড়ির মাঝ থেকে আবরারের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। জানা যায়, ওই রাতেই হলটির ২০১১ নম্বর কক্ষে আবরারকে পেটান বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতা। ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসক জানিয়েছেন, তাঁর মরদেহে অসংখ্য আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। আবরার বুয়েটের তড়িৎ ও ইলেকট্রনিক প্রকৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের (১৭ তম ব্যাচ) শিক্ষার্থী ছিলেন।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ