আমার রঙিন শৈশব রক্তাক্ত করো না

  © টিডিসি ফটো

দেশব্যাপী ধর্ষণের ঘটনার প্রতিবাদে আজও মানববন্ধনে সরব হয়ে উঠেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি এলাকা। ধর্ষকদের সর্বোচ্চ শান্তি প্রকাশ্যে মৃত্যদণ্ড দেওয়ার দাবিতে আজ বুধবার সকাল থেকেই বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে মানবন্ধন করছেন সাধারণ ছাত্রীরা। এসময় বিশেষ ট্রাইব্যুনালের মাধ্যমে ৩০ দিনের মধ্যে বিচার করে ধর্ষককে দড়িতে ঝুঁলানোরও দাবি জানান শিক্ষার্থীরা।

মানববন্ধনে নিপু ইসলাম তন্বী বলেন, ‘আমরা ধর্ষকদের সর্বোচ্চ শাস্তি প্রকাশ্যে মৃত্যুদন্ড চাই। তা হতে হবে ৩০কার্যদিবসের মধ্যে। গতকালও এ দাবিতে মানববন্ধন করেছি। আজ আমাদের কর্মসূচির মধ্যে আছে দাবির পক্ষে গণসাক্ষর কর্মসূচি ও মানববন্ধন। এছাড়া আগামীকাল প্রধানমন্ত্রীর কাছে স্বারকলিপি দিতে যাবেন বলেও জানান তিনি।

মানববন্ধনে ব্যানার হাতে দাড়িয়ে গেছেন দুই কোমলমতি শিশুও। তাদের বহন করা ব্যানারে লেখা রয়েছে, ‘আমার রঙিন শৈশব রক্তাক্ত করো না।’

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ইভেন্ট খুলে এ কর্মসূচির ডাক দেন শিক্ষার্থীরা। এতে শতাধিক সাধারণ শিক্ষার্থীর সঙ্গে সচেতন নাগরিকরাও অংশ নেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ ছাত্রীবৃন্দ’র ব্যানারে লেখা ছিল, ‘ধর্ষকদের সর্বোচ্চ শান্তি প্রকাশ্যে মৃত্যদন্ড চাই’। এছাড়া আরও লেখা রয়েছে, পরবর্তী ধর্ষিতা আমি হবার আগে, আমার সুরক্ষা রাষ্ট্রকে বুঝিয়ে দিতে হবে’। একই লেখা ব্যানার নিয়ে তাদের সঙ্গে মানববন্ধনে যোগ দেন সচেতন নাগরিক সমাজ।

শিক্ষার্থীদের বহন করা পোস্টারে লেখা ছিল, ‘শিশুকামীদের ফাঁসি চাই, মৃত্যুদণ্ড চাই’, ‘ধর্ষকের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড চাই’, ‘বিশেষ ট্রাইব্যুনালের মাধ্যমে ৩০ দিনের মধ্যে বিচার করে ধর্ষককে দড়িতে ঝুঁলাতে হবে’, ‘বিকৃত মানুষরুপী জানোয়ারমুক্ত সমাজ দাবি নয়, অধিকার..’, ‘নারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা সময়ের দাবি’ ইত্যাদি।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ