মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় তৃতীয় সজিব লাইফ সাপোর্টে

সজিব রায়  © ফাইল ফটো

মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় তৃতীয় স্থান অধিকারী সজিব রায় আত্মহত্যার চেষ্টা চালিয়েছেন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়েছে। তিনি লাইফ সাপোর্টে আছেন।

রোববার (১৬ ফেব্রুয়ারি) ঢামেকের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. খান আবুল কালাম আজাদ গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি জানান, সজীব ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে সারাদেশের মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় তৃতীয় হয়। এর ঢাকা মেডিকেল কলেজে ভর্তি হয়।

সজিব থাকেন ফজলে রাব্বি হলে। ভর্তি হওয়ার পর সব পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে এখন সে সেকেন্ড ইয়ারে আছে। তার ব্যাচ নাম্বার ‘কে কে ৭৬’।

ঢামেকের অধ্যক্ষ জানান, যাত্রাবাড়ী-সায়েদাবাদ এলাকায় গত শুক্রবার রাতে একটি হোটেলে ঘুমের ওষুধ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে সে। তিনি জানান, একপর্যায়ে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে আসে। তার ইউরিন পরীক্ষা করে জানা যায় সে অতিরিক্ত ঘুমের ওষুধ খাওয়ায় ব্রেনে আঘাত পেয়েছে।

তিনি আরও জানান, এরপর তাকে আইসিইউতে নেওয়া হয়। সে আইসিইউতে আছে এবং তার অবস্থা খুব ভালো নেই। এজন্য তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, একটি মেয়ের সঙ্গে তার সম্পর্ক ছিল বলে জানতে পেরেছে। মেয়েটির বিয়ে হয়ে যাচ্ছে। এ কারণে সজিব ঘুমের ওষুধ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে।

এ ব্যাপারে যাত্রাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল ইসলাম গণমাধ্যমকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সায়দাবাদ এলাকায় একটি হোটেলে উঠেছিল শুক্রবার। শনিবার সকালে তাকে ওই হোটেল থেকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। তার নিকট থেকে চিরকুট উদ্ধার করা হয়েছে। সেটাতে অনেক কিছুই লেখা আছে। বর্তমানে সে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন বলেও তিনি জানান।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ