সালমান খানের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ ভারতীয় অভিনেত্রী পূজার

  © ফাইল ফটো

ভারতীয় চলচ্চিত্রের পোস্টার বয় খ্যাত সালমান খান ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ করেছেন মডেল ও অভিনেত্রী পূজা মিশ্র। নিজের ইউটিউব চ্যানেলে এ সংক্রান্ত বেশ কয়েকটি ভিডিও আপলোড করেছেন তিনি।

ভিডিওতে পূজা অভিযোগ করে বলেন, সোনাক্ষী সিনহার জন্য সালমান খান, তার বাবা সেলিম খান ভাই আরবাজ এবং সোহেলের সঙ্গে মিলে তাকে ধর্ষণ করা হয়েছে। এর আগে ২০১৭-১৮ সালে সারা বিশ্বে যখন হ্যাশট্যাগ মিটু ঝড় উঠেছে তখনও একই অভিযোগ করেছিলেন এই অভিনেত্রী।

নিজের ইউটিউব চ্যানেলে পূজা বলেন, গত দশ বছর ধরে তাঁর কেরিয়ার ইচ্ছে করে নষ্ট করে আসছেন খান পরিবার। ২০০৯-এ ‘দাবাং’ ছবিতে চরিত্র দেওয়ার মিথ্যে প্রতিশ্রুতি দিয়ে এক ফার্ম হাউজে সালমানের গোটা পরিবার তাঁকে প্রতিদিন ধর্ষণ করতেন।

তিনি আরও বলেন, একই ঘরে সালমন, আরবাজ, সোহেল এবং তাঁদের বাবা সেলিম খান মিলে ধর্ষণ করেছিলেন তাঁকে। ঘরে উপস্থিত ছিলেন শত্রুঘ্ন সিনহার স্ত্রী পুনম সিনহাও। মেয়ে সোনাক্ষিকে যাতে ‘দাবাং’ ছবিতে কাস্ট করা হয় সেই কারণেই নাকি এই পাশবিক কাজে উৎসাহ দিয়েছিলেন তিনিও।

পূজার এমন অভিযোগ নিয়ে আজ পর্যন্ত মুখ খোলেননি সালমন-সেলিমরা। তবে খেসারত দিতে হয়েছিল পূজাকে। সোশ্যাল মিডিয়ায় উল্টো তিনিই ট্রল হয়েছিলেন।

১৯৮২ সালের ১১ মার্চ বিহারের মুঙ্গেরে জন্ম নেন পূজা। ছোট খাট মডেলিং দিয়ে নিজের কেরিয়ার শুরু করলেও টিভিতে তাঁর আত্মপ্রকাশ এক টিভি-শোর মধ্য দিয়েই। সেই টক-শোতে প্রতিযোগীদের সম্পর্ক নিয়ে নানা পরামর্শ দিতেন পূজা।এর পর ‘মেরে দিল লেকে দেখো’ নামে একটা ছবিতেও অভিনয় করেছিলেন পূজা। বিগ বস-৫ সিজনেও তাঁকে দেখা গিয়েছিল প্রতিযোগী হিসেবে।কিন্তু সেখানেও সহ প্রতিযোগীদের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করায় তাঁকে সেই শো থেকে বের করে দেওয়া হয়।

সূত্র: আনন্দবাজার


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ