ঘূর্ণিঝড় আম্পানে পশ্চিমবঙ্গে ৭২ জনের মৃত্যু

  © ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

সুপার সাইক্লোন আম্পানের তাণ্ডবে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে ৭২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্য়ে কলকাতায় মৃত্যু হয়েছে ১৫ জনের। এছাড়া হাওড়ায় সাত, উত্তর ২৪ পরগনায় ১৭, পূর্ব মেদিনীপুরে ছয়, বারুইপুরে ছয়, ডায়মন্ড হারবারে আট, সুন্দরবনে চার, চন্দননগরে দুই, রানাঘাটে ছয় জনের মৃত্যু হয়েছে বলে নবান্নে জানিয়েছেন মুখ্য়মন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায়।

আম্পানে বাংলায় মৃতদের পরিজনদের আড়াই লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন মমতা। পাশাপাশি মুখ্য়মন্ত্রী বলেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রীকে বলব, রাজ্য়ে এসে পরিস্থিতি ঘুরে দেখুন।’ রাজ্যে নবান্নের পক্ষ থেকে হেল্পলাইন নম্বর চালু করা হয়েছে, সেগুলো হল- ২২১৪-৩৫২৬, ২২১৪-১৯৯৫। খবর: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

আম্পানের তাণ্ডবলীলায় কার্যত ধ্বংসের চেহারা নিয়েছে সেখানকার একাংশ। কলকাতাসহ রাজ্য়ের বিভিন্ন প্রান্ত বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়েছে। ইন্টারনেট ও টেলিযোগাযোগ পরিষেবা ব্য়াপকভাবে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে।

আম্পান পরিস্থিতি নিয়ে মুখ্য়মন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায়ের সঙ্গে ফোনে কথা বলে সাহায্য়ের আশ্বাস দিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। টুইটারে বাংলার পাশে দাঁড়ানোর বার্তা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীও।

আলিপুর আবহাওয়া দফতর সূত্র জানিয়েছে, দিঘা ও হাতিয়ার মধ্য়ে দিয়ে গিয়ে বুধবার সুন্দরবন এলাকা অতিক্রম করে অতি শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আম্পান। ঘণ্টায় ১৫৫-১৬৫ কিমি বেগে ধেয়ে যায় সেটি।

ঝড়ের সর্বোচ্চ বেগ ছিল ঘণ্টায় ১৮৫ কিমি। কলকাতায় ঝড়ের সর্বোচ্চ বেগ ছিল ঘণ্টায় ১৩৩ কিমি। ঝড়ের প্রভাবে আজও সকাল থেকে কলকাতা-সহ পশ্চিমবঙ্গের আকাশে গুমোট ভাব দেখা গেছে।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ