গোবর-গোমূত্র’র ব্যবসায় ৬০ শতাংশ সরকারি অনুদান!

গোমূত্র এবং গোবরের ব্যবসা শুরু করলে ৬০ শতাংশ সরকারি অনুদান পাবে তরুণরা। গোমূত্র এবং গোবরের সফলভাবে বাণিজ্যিকীকরণ করতে তরুণদের উৎসাহিত করতে এই উদ্যোগ নেয় ভারতের মোদি সরকার। এই উদ্যোগের কথা জানিয়েছে টাইমস অভ ইন্ডিয়া।

গুজরাট প্রদেশের গান্ধীনগরে এন্টারপ্রিনিউরশিপ ডেভলপমেন্ট ইন্সটিটিউট অব ইন্ডিয়ার একটি অনুষ্ঠানে দেশটির রাষ্ট্রীয় কামধেনু আয়োগের চেয়ারম্যান বল্লভ খাতিরিয়া বলেন, ‘স্টার্ট আপ ইন্ডিয়ার’ আওতায় যারা গো-সংক্রান্ত পণ্যের ব্যবসা করবেন, তাদের প্রাথমিক মূলধনের ৬০ শতাংশ সহয়তা করবে সরকার।

খাতিরিয়া জানান, তরুণ প্রজন্মকে উৎসাহ দিতে শুধু দুধ বা ঘি নয়, গরুর বর্জ্যকে কাজে লাগিয়ে যেন আয় হয়, সেজন্য সব রকমের সাহায্য করবে কেন্দ্র।

তিনি বলেন, ওষুধ এবং সার তৈরিতে গোমূত্র ও গোবর ব্যবহার হয়। গো-সংক্রান্ত ব্যবসায় সব ধরনের উৎসাহ দিতে তৎপর কেন্দ্র।

মোদি সরকার ফেব্রুয়ারিতে ৫০০ কোটি টাকার কামধেনু আয়োগ প্রতিষ্ঠা করে। এই আয়োগের মূল লক্ষ্য গরুর নিরাপত্তা এবং গো সংক্রান্ত বিষয়ে নতুনত্ব ব্যবসার ক্ষেত্র তৈরি করা।

খাতিরিয়ার কথায়, গোমূত্র এবং গোবর এই ব্যবসায় নতুন দিশা দেখাতে পারে। ওষুধ তৈরিতে গোমূত্রের প্রয়োজন হয় বলে দাবি তাঁর। তাই অত্যাধুনিক উপায়ে গোমূত্র শোধণ করে কীভাবে ব্যবসা করা যায় তার প্রশিক্ষণও দেবে কেন্দ্র। ইতিমধ্যে বিভিন্ন গোশালায় এ ধরনের প্রশক্ষিণ হচ্ছেও বলে জানান তিনি।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ