কিছুটা স্বস্তি কাশ্মীরে

  © সংগৃহীত

টানা পাঁচদিন পর ভারত অধিকৃত কাশ্মীরে আংশিকভাবে ফোন ও ইন্টারনেট সেবা চালু করা হয়েছে। শুক্রবার সকালে আংশিকভাবে ফোন ও ইন্টারনেট সেবা এবং জুমার নামাজের আগে রাস্তাঘাটে চলাচল সংক্রান্ত নিষেধাজ্ঞাগুলো শিথিল করা হয়। সব মিলিয়ে কিছুটা স্বস্তি ফিরিছে কাশ্মীরে। খবর এনডিটিভি।

ভারতের সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপের মাধ্যমে অধিকৃত কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল এবং অঞ্চলটিকে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে পরিণত করার পর যেকোনো অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে কয়েক হাজার নিরাপত্তাকর্মী সেখানে মোতায়েন করা হয়।

শ্রীনগরের জামা মসজিদের ফটক বন্ধ করে দেয়া হয়। তবে অভ্যন্তরীণ ছোট ছোট মসজিদে নমাজ পড়ার অনুমতি দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন সরকারি কর্মকর্তারা। অবশ্য এসব মসজিদের আশেপাশে অনেক নিরাপত্তাকর্মী মোতায়েন করা হয়।

অঞ্চলটির পুলিশ প্রধান দিলবাগ সিং জানান, স্থানীয়দেরকে আশেপাশের মসজিদে গিয়ে জুমার নামাজ আদায়ের অনুমতি দেয়া হয়েছে। তবে তাদের নিজেদের এলাকা ছেড়ে অন্য অঞ্চলে যাওয়া উচিত নয়।

এদিকে অঞ্চলটির মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি এবং ওমর আবদুল্লাহসহ প্রায় ৪০০ রাজনৈতিক নেতারা এখনও সরকারি হেফাজতে আছেন। রাজ্যপাল সত্যপাল মালিক বৃহস্পতিবার সামগ্রিক পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে আশ্বাস দেন যে আগামী সপ্তাহে ঈদ উৎসব ও নামাজ আদায়ের জন্য বিধিনিষেধ নমনীয় করা হবে।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি কাশ্মীর নিয়ে জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণে বলেন, ঈদ উদযাপনের সময় মানুষের কোনও অসুবিধা যাতে না হয় তা নিশ্চিত করবে সরকার।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ