স্বপ্ন যাদের মেডিকেল-ডেন্টাল

স্বপ্ন যাদের মেডিকেল-ডেন্টাল
আবদুল্লাহ আর রায়হান  © টিডিসি ফটো

প্রিয় এইচএসসি-২০২০ সালের শিক্ষার্থী বন্ধুরা। আর কিছুদিনের মাঝেই তোমাদের এইচএসসি পরীক্ষা। এই সময়টায় অনেকেই দোলাচলে আছো মেডিকেলে পড়বো নাকি ইঞ্জিনিয়ারিং নাকি বিশ্ববিদ্যালয়ে?

স্বপ্ন যাদের মেডিকেল-ডেন্টাল তাদের মনের মধ্যে হয়তো মেডিকেল-ডেন্টাল ভর্তি পরীক্ষা নিয়ে অনেক কিছুই জানার আগ্রহ। শিক্ষার্থীদের মনে জন্ম নেওয়া অনেক প্রশ্নের মধ্যে কমন কিছু প্রশ্ন এবং তার উত্তর নিয়ে সাজানো হয়েছে আজকের আয়োজন।

প্রশ্ন— মেডিকেল-ডেন্টাল ভর্তি পরীক্ষা দেওয়ার পূর্ব শর্ত কি?
উত্তর— এইচএসসি ও এসএসসি দুটির সম্মিলিত জিপিএ অবশ্যই ৯.০০ হতে হবে ( উপজাতি এবং পার্বত্য চট্টগ্রামের অউপজাতীয় প্রার্থীদের ক্ষেত্রে সেটি ৮.০০। এসএসসি বা এইচএসসি কোনোটিতেই এককভাবে ৩.৫০ এর নিচে থাকা যাবে না। এইচএসসি তে অবশ্যই বায়োলজি থাকতে হবে এবং বায়োলজিতে নূ্ন্যতম জিপিএ ৩.৫০ থাকতে হবে।

প্রশ্ন— মেডিকেল-ডেন্টাল ভর্তি পরীক্ষা কখন হয়?
উত্তর— বিগত বছর গুলোর প্রাপ্ত ধারণা অনুযায়ী মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষা সেপ্টেম্বর মাসের শেষ দিক থেকে অক্টোবর এর শুরুর এই সময়টাতেই যেকোনো একটি শুক্রবারে হয়ে থাকে। আর ডেন্টাল পরীক্ষা সাধারণত নভেম্বর এর শুরু অথবা মাঝামাঝি সময়ের মাঝে যেকোনো একটি শুক্রবারে হয়ে থাকে।

প্রশ্ন— পরীক্ষার মানবন্টন ও সময় বিন্যাস কিরূপ?
উত্তর— সর্বমোট ৩০০ নম্বরের পরীক্ষা হয়ে থাকে যার মধ্যে ২০০ নম্বর এইচএসসি ও এসএসসি এর জিপিএ এবং ১০০ নম্বরের এমসিকিউ পরীক্ষা।

প্রশ্ন— জিপিএ এর নম্বর কিভাবে বণ্টন হয়?
উত্তর— এসএসসি পরীক্ষায় প্রাপ্ত জিপিএ কে ১৫ দিয়ে গুণ, এবং এইচএসসি পরীক্ষায় প্রাপ্ত জিপিএ কে ২৫ দিয়ে গুণ করা হয়। তার মানে তুমি যদি এসএসসি পরীক্ষায় ও এইচএসসি উভয়টিতেই জিপিএ ৫ পাও (৫×১৫=৭৫) এবং (৫×২৫=১২৫) সর্বমোট ২০০ নাম্বার পেয়ে যাচ্ছো।

প্রশ্ন— এমসিকিউ এর নাম্বার কিভাবে বণ্টন হবে?
উত্তর— সর্বমোট ১০০ টি এমসিকিউ প্রতিটির নম্বর ১। প্রতিটি ভুলে উত্তরের জন্য ০.২৫ নম্বর কাটা যাবে।জীববিজ্ঞান - ৩০, রসায়ন-২৫, পদার্থবিজ্ঞান- ২০, ইংরেজি-১৫, সাধারণ জ্ঞান- ১০ (বাংলাদেশের ইতিহাস ও মুক্তিযুদ্ধ)। সময়- ১ ঘণ্টা

প্রশ্ন— সরকারি মেডিকেল কলেজে সর্বমোট সীট সংখ্যা কতটি?
উত্তর— বাংলাদেশে সর্বমোট সরকারি মেডিকেল কলেজ-৩৬ টি। আসন সংখ্যা সাধারণ-৩৯৬৬, মুক্তিযোদ্ধা কোটা-৮২ টি, পার্বত্য জেলা ১২ টি ( ৯ টি উপজাতি + ৩ টি অউপজাতি), পার্বত্য চট্রগ্রামের বাহিরের উপজাতি-৮ টি। সর্বমোট- ৪০৬৮ টি।

প্রশ্ন— সরকারি ডেন্টাল কলেজে সীট সংখ্যা কতটি?
উত্তর— বাংলাদেশে বর্তমানে সরকারি ডেন্টাল কলেজের সংখ্যা ৯টি। আসন সংখ্যা সাধারণ-৫১৭ টি, মুক্তিযোদ্ধা কোটা- ১০টি, উপজাতি কোটা- ৫ টি। সর্বমোট-৫৩২।

আজ এই পর্যন্তই। পরবর্তী কোনো একদিন মেডিকেল-ডেন্টাল প্রস্তুতি নিয়ে বিষয়ভিত্তিক আলোচনা করব নিশ্চয়ই।


লেখক: শিক্ষার্থী ঢাকা মেডিকেল কলেজ (২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষ)


মন্তব্য