বেরোবি ২য় মেধাতালিকা প্রকাশ, ভর্তি ৮ ডিসেম্বর

  © ফাইল ফটো

বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় (বেরোবি) ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষ ভর্তি পরীক্ষার ২য় মেধা তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার (০৫ ডিসেম্বর) রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে এ ফলাফল প্রকাশ করা হয়। আগামী ৮ ডিসেম্বর (রোববার) যাচাই-বাছাই ও ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে।

ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ফলাফল অনুযায়ী, বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৩শ’ ১৫টি আসনের মধ্যে ৪শ’ ৬২টি শূন্য রয়েছে। প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ আগামী ৮ ডিসেম্বর তাদের ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে বলা হয়েছে। এর আগে গত ২ ও ৩ ডিসেম্বর মেধাতালিকায় চান্সপ্রাপ্তদের ভর্তি কার্যক্রম সম্পন্ন হয়।

বিভিন্ন ইউনিটের অপেক্ষমাণ তালিকা

‘এ’ ইউনিট (কলা অনুষদ): শূন্য আসন -৮৫। ১ম শিফট: (বিজ্ঞান -২৭টি আসন), শূন্য আসন-১৫, ভর্তি হতে পারবে (৩৪-৪৯ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ২য় শিফট: (বিজ্ঞান -২৮টি আসন), শূন্য আসন-৯, ভর্তি হতে পারবে (৩৫-৪৪ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ৩য় শিফট: (বাণিজ্য -১৫টি আসন), শূন্য আসন-৯ ভর্তি হতে পারবে (১৬-২৮ মেরিট পজিশন পর্যন্ত), (মানবিক -৬২টি আসন), শূন্য আসন-২৩, ভর্তি হতে পারবে (৫৭-৯৫ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ৪র্থ শিফট: (মানবিক-৬৩টি আসন), শূন্য আসন- ২৯ ভর্তি হতে পারবে (৬৭-১০০ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)।

‘বি’ইউনিট (সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ)

শূন্য আসন -১৩১। ১ম শিফট: (বিজ্ঞান-৭৬টি আসন), শূন্য আসন- ২৯ টি, ভর্তি হতে পারবে (৯১-১২৪ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ২য় শিফট: (বিজ্ঞান -৬১ টি আসন), শূন্য আসন-২৬ টি, ভর্তি হতে পারবে (৭০- ১০১ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। (বাণিজ্য- ৬১টি আসন), শূন্য আসন- ১৭ টি, ভর্তি হতে পারবে (৬৬-৮৮ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ৩য় শিফট: (মানবিক -৮৯টি আসন), শূন্য আসন-২৭ টি, ভর্তি হতে পারবে (৯৬-১২৪ মেরিট পজিশন পর্যন্ত) ৪র্থ শিফট: (মানবিক -৮৮টি আসন), শূন্য আসন- ৩২ টি, ভর্তি হতে পারবে (৯৬-১৩০ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)।

‘সি’ ইউনিট (বিজনেস স্টাডিজ অনুষদ)

শূন্য আসন -৬৫। ১ম শিফট: (বিজ্ঞান ও মানবিক -৬০টি আসন), শূন্য আসন- বিজ্ঞান বিভাগের ২৩ টি এবং মানবিক বিভাগের ৩ টি, ভর্তি হতে পারবে ( বিজ্ঞান ৬৫-৯০ ও মানবিক ৭০-৮২ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ২য় শিফট: (বাণিজ্য-১৮৫টি আসন), শূন্য আসন- ৩৯ টি, ভর্তি হতে পারবে (২০৩-২৪২ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)।

‘ডি’ ইউনিট (বিজ্ঞান অনুষদ)

শূন্য আসন -৮৩। ১ম শিফট: (বিজ্ঞান -১৪০টি আসন), শূন্য আসন-৬৫ টি, ভর্তি হতে পারবে (১৩২-২৪৮ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ২য় শিফট: (বিজ্ঞান -১৪০টি আসন), শূন্য আসন-৫৮ টি, ভর্তি হতে পারবে (১৪৭- ২৪৪ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)।

‘ই’ ইউনিট (প্রকৌশল ও প্রযুক্তি অনুষদ)

শূন্য আসন -৩২। ৩য় শিফট: (বিজ্ঞান -৪৯টি আসন), শূন্য আসন-১৯ ভর্তি হতে পারবে (৫৫- ৭৪ মেরিট পজিশন পর্যন্ত), ৪র্থ শিফট: (বিজ্ঞান -৫১টি আসন), শূন্য আসন- ১৩ টি, ভর্তি হতে পারবে (৫৫- ৬৭ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)।

‘এফ’ ইউনিট ( জীব ও ভূ-বিজ্ঞান অনুষদ)

শূন্য আসন -৬৬। ৩য় শিফট: (বিজ্ঞান- ৮০টি আসন), শূন্য আসন- ৫০ টি, ভর্তি হতে পারবে ( ১০১- ১৫৩ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)। ৪র্থ শিফট: (বাণিজ্য ও মানবিক- ৪০টি আসন), শূন্য আসন- বাণিজ্য বিভাগের ২ টি এবং মানবিক বিভাগের ১৪ টি, ভর্তি হতে পারবে (বাণিজ্য ৫০-৫৫ ও মানবিক ৪৪-৬০ মেরিট পজিশন পর্যন্ত)।

ভাইভা ও যাচাই-বাছাইয়ের সময় যেসব কাগজপত্র নিয়ে আসতে হবে

* উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার মূল রেজিস্ট্রেশন কার্ড, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার মূল ট্রান্সক্রিপ্ট এবং মূল সার্টিফিকেট/প্রভিশনাল সার্টিফিকেট/ প্রশংসাপত্র।
* মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার মূল ট্রান্সক্রিপ্ট-এর ফটোকপি (প্রতিটির ৩ কপি করে)।
* ভর্তি পরীক্ষার প্রবেশপত্র।
* ৩ কপি পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবি (ভর্তি পরীক্ষার প্রবেশপত্রে ব্যবহৃত ছবির অনুরূপ)।
* ভর্তির সময় মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার মূল ট্রান্সক্রিপ্ট জমা দিতে হবে।
* অনলাইনে পূরণকৃত চয়েস ফরম এর প্রিন্টকপি (রঙিন)।

এছাড়া প্রত্যেক ভর্তিচ্ছুকে নির্ধারিত একাডেমিক ভবনগুলোর সামনে রক্তদাতাদের সংগঠন ‘বাঁধনের বুথে নিজের রক্তের গ্রুপ নির্ণয় করে টোকেন ভর্তির সময় জমা দিতে হবে।


মন্তব্য

সর্বশেষ সংবাদ